এখন সময় :
,
PopularITLtd.com
মেনু |||

ইবিতে ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যে সরস্বতী পূজা উদযাপিত

নিজস্ব প্রতিবেদক, (ইবি) : ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) বিদ্যার দেবী সরস্বতী পূজা উদযাপন করেছে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় পূজা উদযাপন পরিষদ।

 

আজ (রবিবার) সকালে বাংলা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. তপন কুমার রায় এর সভাপতিত্বে বীরশ্রেষ্ঠ হামিদুর রহমান মিলনায়তনের করিডোরে ধর্মীয় ভাব গাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে সরস্বতী পূজা উদযাপিত হয়েছে।

 

জ্ঞানই পুণ্য, জ্ঞানেই পূর্ণ, জ্ঞানেই শক্তি, ভক্তিতে মুক্তি, এই লক্ষ্যে বাণী অর্চনা – ১৪২৫ উপলক্ষে দুপুর ১২টায় টিএসসিসি মিলনায়তনে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে ধর্মালোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, শ্রী চৈতন্য ভাবনামৃত সংঘের যুগ্ন-সাধারণ সম্পাদক শ্রী অপুর্ব মাধব দাস বাবাজী মহারাজ এবং ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. অরবিন্দ সাহা।

 

এছাড়া অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপাচার্য প্রফেসর ড. হারুন- উর- রশীদ আসকারী। বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন ছাত্র উপদেষ্টা প্রফেসর পরেশ চন্দ বর্মণ, সিন্ডিকেট সদস্য প্রফেসর তপন কুমার জোয়াদ্দার, আইন অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. রেবা মন্ডল, পূজা উদযাপন কমিটি, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দ, এবং সনাতন ধর্মাবলম্বী শিক্ষার্থীরা।

 

এসময় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় উপাচার্য ড. রাশীদ আসকারী বাণী অর্চনা সরস্বতীর বিশ্লেষণ করে বলেন, বিদ্যার দেবী সরস্বতী শব্দটি সরস থেকে এবং স্বঅতি থেকে যার অর্থ অধিকারীনি অর্থাৎ যার আছে জল, মানে জলের সাথে সম্পর্ক যার। জলের প্রবাহ জ্ঞানের চর্চার সাথে প্রাসঙ্গিক।

এছাড়া তিনি উপস্থিত শিক্ষার্থীদের বলেন ধর্মকে আমরা অন্য ধর্মের ক্ষতি করার অস্ত্র হিসেবে ব্যবহার না করি যদি এটাকে অস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করি তাহলে এটি হয়ে উঠবে বিধ্বংসী।
আসুন আমরা আন্ত:ধর্ম সম্পর্ক উন্নয়ন করি এবং ধর্ম যার যার দেশ আমার এই স্লোগানকে সামনে রেখে একুশ শতকের উপযোগী দেশ হিসেবে গড়ে তুলি।

 

দুপুরে প্রীতিভোজ শেষে সনাতন ধর্মাবলম্বী শিক্ষার্থীদের আয়োজনে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।

 

 

আমাদের সকাল/এসআর

Share Button
সম্পাদক: রিনি জাহান
নির্বাহী সম্পাদক : মো. কাইছার নবী কল্লোল
যোগাযোগ : ১/এ, (২য় তলা), পুরানা পল্টন লেন, ঢাকা-১০০০
ফোন নম্বর : ০১৬২১০৩৫২৮৯, ০১৬৩৪৭৩১৩৪২
Email: amadarshokal24@gmail.com